Cinque Terre
1549703582503

রাজনীতির বৈষয়িক নীতি ও মূল্যবোধ

রাজনীতির বৈষয়িক নীতি ও মূল্যবোধ

রাজনীতি হচ্ছে অধিকতর পারফেক্ট হওয়ার একটি শিল্প। এই পারফেক্টনেস অর্জনের জন্য প্রয়োজন সৃজনশীলতা, সদিচ্ছা, সাহস, সততা ও আত্মত্যাগ। রাজনীতি মানে কোন প্রকারে ক্ষমতা লাভ করে শোসন আর নিজকে সম্পদশালী ও প্রভাবশালী করা নয়। রাজনীতির মানে নিজের মানবিক গুণাবলীকে বিকশিত করে শ্রেষ্ঠত্ব অর্জন করা। একজন রাজনীতিবিদ হবেন সমাজের জন্য অনুসরণীয় ও শ্রদ্ধাভাজন ব্যক্তি। তার অনুপস্থিতিতে সমাজের ভাল মানুষগুলো যদি তার অভাববোধ করেন, তবে তিনি সফল রাজনীতিক। আর যদি তার অনুপস্থিতিকে মানুষ নি®কৃতি মনে করেন, তবে তিনি অপরাজনৈতিক দূর্বৃত্ত।

রাজনীতি মানে সত্য বলা এবং সত্য প্রতিষ্ঠা করা। একজন রাজনীতিক নিজে যা বিশ্বাস করবেন, তাই তাকে করতে হবে। এখানে বিবেকের সর্বোচ্চ চর্চা থাকতে হবে। বিবেক এমন একটি শক্তি যা ন্যায় ও অন্যায়ের পার্থক্য করে দেয়। মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সাঃ) বলেছেন, পাপ ওই জিনিস যা তোমার মনে দূঃচিন্তার উদ্দ্রেক করে এবং লোকে জেনে ফেলুক সেটা তুমি পছন্দ কর না। এই পাপ হচ্ছে অন্যায়, অসত্য। কোন রাজনীতিক পাপ বা অন্যায়কে প্রশ্রয় দিতে পারবেন না। এখানে যদি তিনি হেরে যান, তবে তিনি রাজনৈতিক শিল্পবোধ সম্পন্ন মানুষ নন। তিনি তখন হয়ে যাবেন অপরাজনৈতিক দূর্বৃত্ত। রাজনীতির মাঠ তখন আর তার থাকে না।

নিজের চিন্তাকে স্বাধীনভাবে প্রকাশ করা এবং এই প্রকাশের জন্য পরিপূর্ণ সাহস সঞ্চয় করা একজন রাজনীতিকের প্রধান প্রত্যয়। এখানে কোন আপোষ চলবে না। যদি মতপ্রকাশের উপযুক্ত পরিবেশ না থাকে, তবে তা তৈরীর জন্য সংগ্রাম করে যেতে হবে। এই সংগ্রামে অন্যদেরকে সঙ্গী করতে হবে। সেই সংগ্রামে যদি কেউ সম্পৃক্ত নাও হন, তবে কবিগুরু রবীন্দ্রনাথের একলা চলো নীতিতে চলতে হবে : যদি তোর ডাক শুনে কেউ না আসে, তবে একলা চলোরে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *